অলিম্পিকের জন্য বৃক্ষনিধন, রুখলেন প্যারিসের পরিবেশকর্মীরা

গাছের ওপর দড়ি দিয়ে ঝোলানো হয়েছে বেশ কিছু ক্যাম্প। তার মধ্যেই রাত্রিবাস করছেন একদল মানুষ। না, ন্যাশনাল জিওগ্রাফি কিংবা ডিসকভারির কোনো অ্যাডভেঞ্চার শো নয়। এই দৃশ্য খোদ ফ্রান্সের প্রাণকেন্দ্র প্যারিস নগরীর। বৃক্ষচ্ছেদন আটকাতে বিগত কিছুদিন ধরেই অভিনব প্রতিবাদে নেমেছিলেন প্যারিসের (Paris) পরিবেশকর্মীরা। এবার শেষ পর্যন্ত জয় ছিনিয়ে আনলেন তাঁরা। 

ফুটবল বিশ্বকাপই হোক কিংবা অলিম্পিক— যে-কোনো বড়ো আন্তর্জাতিক প্রতিযোগিতার আগে নিজের দেশকে ‘ঝকঝকে’ করে তোলার প্রকল্প নেয় আয়োজক রাষ্ট্র। অবশ্য তার জন্য দেশের আখেরে লাভ হলেও, মূল্য দিতে হয় প্রকৃতি এবং সাধারণ মানুষকে। প্যারিসের ক্ষেত্রেও হল তেমনটাই। আগামী ২০২৪ সালে অলিম্পিক আয়োজিত হতে চলেছে প্যারিস নগরীতে। আর সেই কারণেই আইফেল টাওয়ারকে কেন্দ্র করে দৃষ্টিনন্দন বাগান তৈরি করার পরিকল্পনা নিয়েছিল ফ্রান্স সরকার। এই প্রকল্পের জন্য আনুষ্ঠানিকভাবে বরাদ্দ করেছিল ৭ কোটি ৫০ লক্ষ ইউরো। 

পাশাপাশি মার্কিন স্থপতি ক্যাথরিন গুস্তাফসনের নকশা মেনে পরিকল্পনা করা হয়েছিল আইফেল টাওয়ারের চারদিকে তৈরি হবে পৃথক পৃথক লেন। কোনোটিতে যাবে সাইকেল, কোনোটি শুধুমাত্র পদযাত্রীদের জন্য, আবার কোনোটায় চলবে গণপরিবহনের যান। ব্যক্তিগত গাড়ি কিংবা মোটর সাইকেল এই পথ দিয়ে যাওয়া নিষিদ্ধ হবে আগামীদিনে। 

নাগরিকদের অসুবিধা হওয়ার সম্ভাবনা থাকলেও, এই সমগ্র পরিকল্পনায় আপত্তি তোলেননি কেউ-ই। তবে সম্প্রতি প্রশাসনের তরফে খোলসা করা হয়, গোটা নির্মাণ প্রকল্পের জন্য কাটা হবে ৪২টি বৃক্ষ। যার মধ্যে অধিকাংশ গাছের বয়সই প্রায় ২০০ বছরের বেশি। স্বয়ং নেপোলিয়ন রোপণ করেছিলেন সেগুলি। ফলে, গাছগুলির ঐতিহাসিক গুরুত্বও কম নয়। এই ঘোষণার পরেই পরিবেশকর্মীদের বিক্ষোভের সাক্ষী হয় প্যারিস। প্যারিসের রাস্তা ছেয়ে যায় প্ল্যাকার্ড আর পোস্টারে। রাস্তায় প্রতিবাদমূলক অবস্থান থেকে, গাছে তাঁবু খাটিয়ে থাকা— বৃক্ষচ্ছেদনকারীদের রুখতে সবকিছুই করেছেন পরিবেশকর্মীরা। এবার দীর্ঘ এক সপ্তাহেরও বেশি দিন ধরে চলা এই লড়াই-এ জয় ছিনিয়ে আনলেন তাঁরা। গতকাল প্যারিস প্রশাসন নিশ্চিত করেছে, কাটা হবে না শহরের প্রাচীন মহীরুহগুলিকে। বদলে নতুন করে প্যারিস সাজানোর পরিকল্পনা করা হবে। 

আরও পড়ুন
বৃক্ষচ্ছেদন রুখতে টানা ৭৩৮ দিন গাছেই বসবাস!

এর আগে টোকিও অলিম্পিকের ক্ষেত্রেও ঘটেছিল একই ঘটনা। অলিম্পিক স্টেডিয়াম এবং কানট্রি হাউস তৈরির জন্য কাটা হয়েছে বহু গাছ, উদ্বাস্তু করা হয়েছিল বহু মানুষকে। প্যারিসে এই একই ঘটনার পুনরাবৃত্তি হচ্ছে না, তা বুঝিয়ে দিলেন ফরাসি পরিবেশকর্মীরা…

আরও পড়ুন
বেআইনি বৃক্ষচ্ছেদন করবেট জাতীয় উদ্যানে, জড়িত বনকর্মীরাই

Powered by Froala Editor

আরও পড়ুন
প্লাস্টিক দূষণ রোধ থেকে বৃক্ষরোপণ— হাজির রোবট