উন্নত ইন্টারনেট প্রযুক্তি পেল আন্দামান; কতটা বদলাবে পরিস্থিতি?

একবিংশ শতকে তরতরিয়ে এগোচ্ছে পৃথিবী। যতই করোনা আসুক, রোগব্যাধি আমাদের স্বাভাবিক জীবন থামিয়ে দিক; বিজ্ঞান আর প্রযুক্তি তাদের কাজ ঠিক করে যাচ্ছে। নতুন নতুন প্রযুক্তি আর অত্যাধুনিক ইন্টারনেট ভেঙে দিচ্ছে সমস্ত সীমা। ভারতও তার বাইরে নেই। প্রতিনিয়ত বিজ্ঞানীরা গবেষণা করে চলেছেন। টেলিকমিউনিকেশন বা যোগাযোগ ব্যবস্থা এবং ইন্টারনেট প্রযুক্তি যাতে আরও উন্নত হয় এবং সব জায়গায় পৌঁছয়, সেই দাবি বহুদিনের। কাজও চলছে সেসব নিয়ে।

কেন্দ্রীয় সরকারের সাম্প্রতিক একটি পদক্ষেপ অবশ্য আশা জাগিয়েছে আন্দামানবাসীদের মধ্যে। সাবমেরিন অপটিকাল ফাইবার কেবল ভারতের চেন্নাই থেকে আন্দামান ও নিকোবর দ্বীপপুঞ্জে পাঠানো হয়েছে। এই প্রথমবার এমন উন্নত প্রযুক্তির সহায়তা পেল এই অংশ। গত সোমবার, অর্থাৎ ১০ আগস্ট এর উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। সমুদ্রের নিচ দিয়ে ২৩০০ কিমি লম্বা এই কেবল আন্দামান ও নিকোবরের চিত্রটাই বদলে দেবে, এমনই বিশ্বাস অনেকের। 

এবার একটু বিস্তারিতভাবে আসা যাক। এই পুরো প্রকল্পটির উদ্দেশ্যই ছিল যাতে আন্দামানে দ্রুত ইন্টারনেট পৌঁছয়। এতদিনের সমস্যার একটা সমাধান হল বলে মনে করছেন বিশেষজ্ঞ মহল। তার কারণ? প্রথমত, পর্যটন ক্ষেত্রে পসার জমাতে গেলে দ্রুত ইন্টারনেট ব্যবস্থা লাগবেই। শুধু পর্যটন ক্ষেত্র কেন, যে কোনো শিল্পের ক্ষেত্রেই তাই। এই ব্যবস্থা হলে আন্দামানে শিল্পের একটা বদল হওয়ার আশা দেখছেন বিশেষজ্ঞরা। অপটিকাল ফাইবার বলে মাঝপথে সিগন্যাল লসের সম্ভাবনা নেই। ফলে কম সময় দ্রুত গতির ইন্টারনেট পাওয়াই যায়। করোনা পরিস্থিতিতে যে ই-লার্নিং সব জায়গায় শুরু হয়েছে, সেটা অনেক ভালোভাবে এখানে হতে পারে। দ্বিতীয়ত, প্রতিরক্ষা ব্যবস্থার ক্ষেত্রেও একে ব্যবহার করা হতে পারে বলে মত অনেকের। অনেক তাড়াতাড়ি এবং অনেক নিরাপদভাবে তথ্য আদানপ্রদান করা যাবে। এটাকেই হয়ত হাতিয়ার করতে চাইবে নৌবাহিনী। আপাতত এসব আশা ভরসার মুখে দাঁড়িয়ে আন্দামানবাসী। ইতিবাচক ভবিষ্যতের কথাই ভাবছেন তাঁরা। 

Powered by Froala Editor

আরও পড়ুন
১৫০ বছর আগে কাগজ তৈরি দিয়ে শুরু, দিনে দিনে মোবাইলে বিশ্বজয় নোকিয়া-র

More From Author See More

Latest News See More

avcılar escortgaziantep escortesenyurt escortantep escortbahçeşehir escort