ছিলেন উত্তরাখণ্ডের ক্রিকেট টিমের ক্যাপ্টেন, বর্তমানে পেট চালাচ্ছেন কায়িক শ্রমের বিনিময়ে

ভারতে কোভিড সংক্রমণের হার লাফিয়ে বাড়ছে প্রতিদিনই। লকডাউনের পর, মানুষও কাজ হারিয়ে বেকার হয়ে পড়ছেন এক লহমায়। বাধ্য হচ্ছেন চিরাচরিত রুটি-রুজিকে বদলে ফেলতে। কিন্তু উত্তরাখণ্ডের রাজেন্দ্র সিং ধামির গল্পটা একটু অন্য।

৩৪ বছর বয়সি উত্তরাখণ্ডের বিশেষভাবে সক্ষম ক্রিকেট টিমের প্রাক্তন ক্যাপ্টেন রাজেন্দ্র। কিন্তু এই পরিবর্তিত পরিস্থিতিতে রুটি-রুজির খাতিরে ক্রিকেট ছেড়ে কায়িক শ্রমের রাস্তায় হাঁটতে বাধ্য হয়েছেন। সরকারের থেকে কোনোপ্রকার সাহায্যই পাননি তিনি। তবু, ব্যক্তিজীবনে খেলোয়াড় বলেই, এত সবের মধ্যেও দমে যাননি একটুও।

তাঁর মতোই বিশেষভাবে সক্ষম যাঁরা, তাঁদের প্রশিক্ষণের মাধ্যমে জীবনের নতুন মানে খুঁজে দিতে চেয়েছেন তিনি সবসময়। যাতে জীবনে পিছন ফিরে দেখতে না হয় কাউকেই। এসবের পাশাপাশি চলছিল ভবিষ্যতের টুর্নামেন্টগুলির জন্যে নিজের প্রস্তুতিও। কিন্তু কোভিড মহামারীর জেরে সেসব কিছুতেই ছেদ পড়েছে আপাতত।

ইতিহাসে উচ্চশিক্ষা এবং বি.এড ডিগ্রি রয়েছে তাঁর। ২০১৪ সালে প্রথম ইন্টারনেটের মাধ্যমে বিশেষভাবে সক্ষম ক্রিকেট টিমের কথা জানতে পারেন তিনি। নিছক শখের বশে শুরু করলেও পরবর্তীতে তা-ই পেশা হয়ে দাঁড়ায় তাঁর কাছে। ২ বছর বয়স থেকে পোলিওর শিকার হলেও জীবনের ব্যাপারে আগ্রহ হারাননি কখনোই। আপাতত রাজেন্দ্র চান, তাঁর এই উদ্দীপনা বিশেষভাবে সক্ষম সকলকেই সাহায্য করুক স্বপ্ন দেখতে। জীবন নতুন আলো নিয়ে এসে চৌকাঠে দাঁড়াক। 

Powered by Froala Editor

More From Author See More

Latest News See More