প্লাস্টিক-দূষণের শীর্ষে কোকাকোলা

মানুষের বাঁচার জন্য চাই ন্যূনতম সুস্থ পরিবেশ। যদি সেই পরিবেশ স্বাভাবিক না রাখা যায়, তার দায়ও নিতে হবে মানুষকেই। সম্প্রতি, একটি সমীক্ষা সেই উৎকণ্ঠাই বাড়িয়ে দিল খানিকটা।

‘ব্রেক ফ্রি ফ্রম প্লাস্টিক’ নামক এক সংস্থা তাদের সমীক্ষায় জানিয়েছে, বিশ্ববিখ্যাত ঠান্ডা পানীয়ের ব্র‍্যান্ড কোকাকোলার পরিত্যক্ত বোতল থেকেই সবথেকে বেশি দূষণ ছড়াচ্ছে পৃথিবীতে। মোট ৩৭টি দেশ ও ৪টি মহাদেশ থেকে প্লাস্টিকের বোতল সংগ্রহ করেছে সংস্থাটি। সমীক্ষায় দেখা গেছে, ৮০০০-এরও বেশি কোম্পানি এই প্লাস্টিক দূষণের জন্য দায়ী। সংগৃহীত বোতলগুলির মধ্যে ১১,৭৩২টি বোতলই কোকাকোলার। বেশ কিছু বোতল নাকি সংগ্রহই করা যায়নি। এই চারটি মহাদেশের মধ্যে প্রথম দুটি স্থানে আছে ইউরোপ ও আফ্রিকা। তৃতীয় ও চতুর্থ জায়গায় আছে যথাক্রমে এশিয়া ও সাউথ আমেরিকা।

কোকাকোলার মুখপাত্র এই রিপোর্টের নিরিখে জানিয়েছেন, তাঁরা এই বিশ্বব্যাপী দূষণ নিয়ে পরবর্তীতে যথেষ্ট সচেতন হবেন। এবং তাঁদের ব্যবহৃত প্লাস্টিক নিয়ে যথেষ্ট পরীক্ষা-নিরীক্ষাও চালাবেন তাঁরা।

প্রসঙ্গত, কার্লসবার্গ ইতিমধ্যেই ‘গ্রিন ফাইবার বটল’ নামে একধরনের বোতল বের করেছে, যাতে পরিবেশ দূষণ কম হবে অনেকটাই। সেই সঙ্গে, সহজে রিসাইকেলও করা যাবে বোতলগুলি।

একান্তই যদি প্লাস্টিকের বোতল ব্যবহার বন্ধ না করা যায়, তাহলে তার মান পরিবেশবান্ধব করে তোলা ছাড়া সত্যিই উপায় নেই আর।

More From Author See More

Latest News See More