করোনায় আক্রান্ত ব্রাজিল প্রেসিডেন্ট বলসোনারো; কৃতকর্মের ফল?

ভাইরাসের সংক্রমণের তালিকায় দ্বিতীয়স্থানে রয়েছে ব্রাজিল। আক্রান্ত হয়েছেন প্রায় ১৬ লক্ষের বেশি। মারা গেছেন ৬৬ হাজার মানুষ। দেশের অবস্থা ক্রমশ খারাপের দিকেই যাচ্ছে। এবার করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হলেন দেশের প্রেসিডেন্ট জের বলসোনারো।

জানা গেছে, গত রবিবার থেকেই তাঁর শরীরে করোনার উপসর্গ দেখা দিয়েছিল। সোমবার করোনার পরীক্ষা করানো হয়। এদিন জ্বর ছিল ১০০ ডিগ্রি ফারেনহাইটেরও বেশি। অফিস থেকেই বাড়ি ফিরে যান তিনি। মঙ্গলবার পজিটিভ আসে তাঁর করোনার রিপোর্ট। সূত্রের খবর বাড়িতেই রয়েছেন তিনি। জ্বর ছাড়া শারীরিক অবস্থার তেমন কোনো অবনতি হয়নি তাঁর। চিকিৎসকরা জানিয়েছেন, বছর পঁয়ষট্টির প্রেসিডেন্ট আগে খেলোয়াড় ছিলেন। ফলে প্রতিরোধ ক্ষমতা তাঁর তুলনামূলকভাবে বেশি। তা সত্ত্বেও রয়েছেন চিকিৎসকদের কড়া নজরে। অন্যদিকে আতঙ্কে রাষ্ট্রপ্রধান শরণাপন্ন হয়েছেন হাইড্রক্সিক্লোরোকুইনের কাছে। যদিও স্বাস্থ্যকর্মীরা সতর্ক করেছেন মাত্রাতিরিক্ত ব্যবহারে দেখা দিতে পারে পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া। 

আমাজন থেকে শুরু করে করোনা ভাইরাস। দেশের ভয়ঙ্কর পরিস্থিতিগুলোতে কোনোদিনই তেমন গুরুত্ব দেননি এই ‘স্বৈরাচারী’ শাসক। ফলে বিতর্কের কেন্দ্রবিন্দুতে বার বার উঠে এসেছে তাঁর নাম। মহামারীর সংক্রমণেও তাঁর সেই গা-ছাড়া ভাব লক্ষ্য করা গিয়েছিল। কোভিড-১৯ কে ‘সামান্য ফ্লু’ বলেই অভিহিত করেছিলেন জের বলসোনারো। দেশে লকডাউন ঘোষণা করতেও অনীহা ছিল। যখন সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন তখন দেরী হয়ে গিয়েছিল অনেকটাই। ব্রাজিলের এই পরিস্থিতির জন্য দায়ী তাঁর গাফিলতি, অভিযোগ উঠেছিল বিভিন্ন মহলে। পাশাপাশি তাঁর বিরূপ মত ছিল মাস্ক পরার ব্যাপারে। তার মাসুলই গুনতে হয়েছে ব্রাজিলকে।

এপ্রিলে ডোনাল্ড ট্রাম্পের সঙ্গে একটি বৈঠকে অংশ নিয়েছিলেন বলসোনারো। বৈঠকের পর বেশ কিছু সদস্যের শরীরেই মিলেছিল ভাইরাসের অস্তিত্ব। ভয় দানা বেঁধেছিল ব্রাজিল-প্রধানের মনেও। পর পর ৩ বার করিয়েছিলেন করোনার নমুনা পরীক্ষা। ক্রমশ যত দিন গেছে আতঙ্ক গ্রাস করেছে তাঁকে। এবার সেই আশঙ্কাই সত্যি হল...

Powered by Froala Editor

More From Author See More