নিউটাউনের ফুটপাতে সোলার প্যানেল, অভিনব পরিকল্পনা এনকেডিএ-র

শহরের রাস্তায় রোদ খুব একটা মেলে না। তবে ফুটপাতে যেটুকু রোদ এসে পড়ে, তাকে কাজে লাগালেই যথেষ্ট পরিমাণ বিদ্যুৎ উৎপাদন করা যেতে পারে। সেই বিদ্যুৎ থেকেই যানবাহন চলাচলের শক্তি উঠে আসতে পারে। এই পরিকল্পনাকে সামনে রেখেই এবার নতুন রূপে সেজে উঠতে চলেছে কলকাতার নিউটাউন (New Town) অঞ্চল। রাস্তার ফুটপাতের ধারে পেভমেন্ট ব্লকের জায়গাতেই সোলার প্যানেল (Solar Panel) বসানোর পরিকল্পনা নিয়েছে নিউটাউন-কলকাতা ডেভলাপমেন্ট অথরিটি – এনকেডিএ। ইতিমধ্যে এই প্রকল্পের জন্য টেন্ডার ঘোষণাও হয়ে গিয়েছে।

রবীন্দ্রতীর্থ প্রেক্ষাগৃহকে ঘিরে ফুটপাতের ৪০০ মিটার এলাকা জুড়ে প্রাথমিকভাবে এই সোলার প্যানেল বসানোর কাজ শুরু হতে চলেছে। সম্পূর্ণ প্রকল্পের জন্য প্রায় ৯.১ কোটি টাকা ধার্য করে রেখেছে এনকেডিএ। পাশাপাশি, যে সংস্থা এই কাজের দায়িত্ব নেবে তাকে ৪ মাসের মধ্যে কাজ শেষ করতে হবে বলেও জানিয়ে দেওয়া হয়েছে। এক্ষেত্রে ফুটপাতের পেভমেন্ট ব্লকগুলি ঢাকা থাকবে শক্ত কাচে। ফলে তার ভিতর দিয়ে সূর্যালোক প্রবেশ করলেও মানুষের পায়ের চাপে ভেঙে যাওয়ার সম্ভাবনা থাকবে না। কিছুদূর অন্তর সোলার প্যানেলগুলির সঙ্গে যুক্ত চার্জিং পয়েন্ট রাখা হবে। রাস্তার ধারে গাড়ি পার্ক করেই ব্যাটারি চার্জ দিয়ে নিতে পারবেন চালকরা।

ইউরোপ-আমেরিকার বহু দেশেই রাস্তার ধারে গাড়ি চার্জিং-এর জন্য বিশেষ সোলার প্যানেলের ব্যবস্থা থাকে। তবে ভারতে এমন উদ্যোগ এই প্রথম। নিউটাউনকে কেবল বাহ্যিক আড়ম্বরে না সাজিয়ে তাকে ভিতর থেকে সম্পূর্ণ আধুনিক উপনগরী হিসাবে গড়ে তোলার নানা উদ্যোগ আগেও নিয়েছে এনকেডিএ। আর এই কাজে বারবার গুরুত্ব দেওয়া হয়েছে সৌরবিদ্যুতের ব্যবহারের ওপর। এর আগে নিউটাউনের জলাশয়গুলিতে সোলার প্যানেল বসানোর পরিকল্পনা নেওয়া হয়েছিল। এছাড়া প্রতিটা বাড়ির ছাদে সোলার প্যানেল বসানোর বিষয়েও জোর দেওয়া হয়েছে বারবার। সৌরবিদ্যুতের পাশাপাশি সামাজিক বৃক্ষরোপণ, দূষণ প্রতিরোধী রাস্তা – নানা ধরনের উদ্যোগই নিচ্ছে এনকেডিএ। আধুনিক শহর মানেই যে দূষণের কেন্দ্র নয়, বরং তাকেও পরিবেশ বান্ধব করে তোলা যায় – এনকেডিএ-র উদ্যোগ সেটাই প্রমাণ করছে।

ছবি - প্রতীকী

Powered by Froala Editor

More From Author See More

Latest News See More