করোনা ভ্যাকসিনের পরীক্ষায় ৩০টি মহিলা বাঁদর, উঠছে প্রশ্ন

লকডাউন শিথিল হয়ে এলেও সংক্রমণের ভয় এখনও তাড়া করে বেড়াচ্ছে। আর আতঙ্ক উস্কে দিয়ে বাড়ছে আক্রান্তের সংখ্যাও। তবে আশার কথা একটাই, বিজ্ঞানীরা এখনও অক্লান্ত পরিশ্রম করে চলেছেন করোনা ভাইরাসের প্রতিষেধক তৈরির। আর অনেক জায়গাতেই শুরু হয়ে গিয়েছে ক্লিনিক্যাল টেস্ট। এবার ভারতেও শুরু হল করোনা ভ্যাকসিনের টেস্টিং। দায়িত্বে ইন্ডিয়ান মেডিক্যাল রিসার্চ ইনস্টিটিউশনের তত্ত্বাবধানে থাকা সংস্থা ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট অফ ভাইরোলোজি, পুনে। আর নমুনা পরীক্ষার জন্য এক্ষেত্রে বেছে নেওয়া হয়েছে ৩০টি বাঁদরকে।

হ্যাঁ, মানুষ নয়; আপাতত বাঁদরের উপর পরীক্ষা চালাতেই আগ্রহী গবেষকরা। যেহেতু এই মারণ রোগের প্রতিষেধকও একইরকম মারাত্মক হয়ে উঠতে পারে, তাই এই সতর্কতা। যদিও এই সিদ্ধান্তকে ঘিরে প্রশ্ন তুলেছেন অনেকেই। তবে কেন্দ্রীয় বনমন্ত্রী সঞ্জয় রাঠোর আশ্বস্ত করে জানিয়েছেন, বাঁদরদের জন্য সবরকম সুরক্ষার ব্যবস্থা করবে এনআইভি। পুনের বর্গাঁও জঙ্গল থেকে সংগ্রহ করা হয়েছে বাঁদরগুলিকে। প্রত্যেকেই মহিলা এবং প্রত্যেকের বয়স ৩ থেকে ৪ বছরের মধ্যে।

ইংল্যান্ড, আমেরিকার পর এবার ভারতেও শুরু হল করোনা ভ্যাকসিনের ক্লিনিক্যাল ট্রায়াল। ইতিমধ্যে ভাইরাস গবেষণার নানা ক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ কাজ করেছেন ভারতীয় গবেষকরা। কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রকের তরফ থেকে জানানো হয়েছে, গত সপ্তাহের সোমবার থেকে ১৪টি নমুনা নিয়ে পরীক্ষা শুরু করেছে এনআইভি। এর মধ্যে সাফল্য পাওয়া না গেলে, আগামী ৩ থেকে ৬ মাসের মধ্যে আরও ৪টি ভ্যাকসিন নিয়ে পরীক্ষা শুরু হবে।

Powered by Froala Editor

More From Author See More

Latest News See More