মণ্ডপে ঢুকতে পারবেন না কোনো দর্শক, পুরনো রায়ই বহাল হাইকোর্টে

করোনা পরিস্থিতিতেই দুর্গাপুজোয় মাততে চলেছে শহর কলকাতা। শুধু কলকাতা নয়, সারা রাজ্যেই এই পরিস্থিতিতে কীভাবে দুর্গাপুজো করা যাবে, তাই নিয়ে চিন্তা ছিলই। গত সোমবার কলকাতা হাইকোর্ট সেই পদ্ধতি নিয়েই ঐতিহাসিক রায় জানায়। আর সেই রায় অনুযায়ী সমস্ত পুজা মণ্ডপকে নো-এন্ট্রি জোন বলে ঘোষণা করা হয়। আজ হাইকোর্টের ডিভিশন বেঞ্চে সেই রায় পুনর্বিবেচনার জন্য পাঠানো হলেও মোটামুটি সেই রায়ই বহাল থাকে। সামান্য কিছু পরিবর্তন আসে আজকের রায়ে।

বুধবার কলকাতা হাইকোর্টের ডিভিশন বেঞ্চ পূর্ববর্তী রায়ের প্রেক্ষিতে জানায়, ৩০০ বর্গমিটারের চেয়ে বড়ো মণ্ডপের জন্য ২৫ জনের বদলে ৬০ জনের তালিকা জমা দেওয়া যাবে, যাঁরা পুজোর সময় মণ্ডপে প্রবেশ করতে পারবেন। এই ৬০ জনের মধ্যে উদ্যোক্তারা ছাড়াও স্থানীয় মানুষ থাকতে পারবেন। তবে সব মিলিয়ে একসঙ্গে ৪৫ জনের বেশি মানুষ মণ্ডপের মধ্যে থাকতে পারবেন না। অন্যদিকে এও জানানো হয়, ৩০০ বর্গমিটারের চেয়ে ছোট মণ্ডপে ১৫ জন প্রবেশাধিকার পাবেন।

তবে সব চেয়ে গুরুত্বপূর্ণ পরিবর্তন হল, এবারে নো-এন্ট্রি জোনের আওতা থেকে বাদ পড়ছেন ঢাকিরা। আদালতের রায়ে জানানো হয়েছে শারীরিক দূরত্ব বজায় রেখে মণ্ডপে প্রবেশ করতে পারবেন ঢাকিরা। ফলে এই পেশার সঙ্গে জড়িত মানুষদের জীবনে শেষ মুহুর্তে যে দুশ্চিন্তার মেঘ নেমে এসেছিল, তা অনেকটাই সরে গেল। যদিও প্রতিমা দর্শন বা সিঁদুর খেলার উপর নিষেধাজ্ঞা বহাল রইল। ফলে দুর্গাপুজো হলেও তার চেহারা অনেকটাই উৎসব বিমুখ হয়ে পড়তে চলেছে, সেকথা বলাই বাহুল্য। যদিও বর্তমানে দেশের নানা প্রান্তেই উৎসবের সময় করোনা সংক্রমণের ঘটনা রীতিমতো দুশ্চিন্তার কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে। সেখানে কলকাতা হাইকোর্টের রায়কে স্বাগত জানাচ্ছেন বেশিরভাগ মানুষ।

Powered by Froala Editor

More From Author See More

Latest News See More