পরিযায়ী শ্রমিকদের পাশে দেশের মহিলা হকি প্লেয়াররা, জোগাড় করলেন ২০ লক্ষ টাকা

লকডাউন ও করোনা— দুই মিলে ক্রমশ জটিল হয়ে যাচ্ছে পরিস্থিতি। কারখানা বন্ধ, সবাই একপ্রকার ঘরবন্দি। এমন পরিস্থিতিতে আরও সংকটে আছে পরিযায়ী শ্রমিকরা। কাজ নেই, আয় নেই। তাঁদের পাশে দাঁড়াতে অনেকেই এগিয়ে এসেছেন। এবার সেই কাজে এগিয়ে এলেন ভারতের মহিলা হকি দলের খেলোয়াড়রা। নিজেরাই উদ্যোগ নিয়ে সংগ্রহ করলেন কয়েক লক্ষ টাকা, যা ওই পরিযায়ী শ্রমিকদের পরিবারের কাজে আসবে।

সোশ্যাল মিডিয়ায় ১৮ দিন ধরে এই ক্যাম্পেইন করেন জাতীয় মহিলা হকি দলের অধিনায়ক রানি রামপাল। তাঁর দেখাদেখি অন্যান্য খেলোয়াড়রাও যোগ দেন। ব্যাপারটি কী? এটি ছিল একটি ফিটনেস চ্যালেঞ্জ। একজন খেলোয়াড় একটি চ্যালেঞ্জ তৈরি করে ফেসবুকে আরও দশজনকে ট্যাগ করবেন। যাঁদেরকে ট্যাগ করা হয়েছে, তাঁরা আবার সেই চ্যালেঞ্জ গ্রহণ করে আরও দশজনকে ট্যাগ করবেন। এইভাবেই এগোতে থাকবে পুরো চেনটা। আর প্রত্যেকে এই চ্যালেঞ্জ গ্রহণ করার পর ১০০ টাকা করে ফান্ডে জমা দেবে। এটাই ছিল মূল ব্যাপার।

রানি রামপাল এই চ্যালেঞ্জ শুরু করার পর এগিয়ে গেছে সময়। ইতিমধ্যেই ব্যাপক সাড়া মিলেছে সোশ্যাল মিডিয়া থেকে। ৩ মে অবধি ২০ লাখেরও বেশি টাকা উঠেছে। যা নিয়ে সত্যিই আশাবাদী হকি দলের খেলোয়াড়রা। এবার এই সংগৃহীত টাকা যাবে পরিযায়ী শ্রমিকদের কাছে। দিল্লির একটি স্বেচ্ছাসেবী সংস্থার কাছে এই টাকা দেওয়া হয়েছে। এবার দেশের নানা প্রান্তের অন্তত হাজারটি পরিবারের খাবার সংস্থান করা হবে। এই পরিযায়ী শ্রমিকরা যাতে আর কষ্ট না পান, সেটাই হবে লক্ষ্য। সবাইকে ধন্যবাদ দেওয়ার পাশাপাশি, আমরা যেন মানুষের পাশে দাঁড়াতে পারি, সেই আবেদনই করেছেন এই খেলোয়াড়রা।

More From Author See More

Latest News See More